সীতাকুণ্ড পৌরসভা ২নং ওয়ার্ড পন্থিছিলায় বন্যপ্রাণী শিকারে অবৈধ বিদ্যুৎ সংযোগে প্রাণ গেল নুর উদ্দীনের

Total Views : 336
Zoom In Zoom Out Read Later Print

সীতাকুণ্ড প্রতিনিধি

চট্টগ্রাম জেলার সীতাকুণ্ডে পাহাড়ি এলাকায় অবৈধ বিদ্যুৎ সংযোগে প্রাণ গেল নুর উদ্দীন নামে এক যুবকের।এই এলাকার পূর্ব অংশে পাহাড় বেষ্টনী হওয়ায় বন্যপ্রাণী শিকারের জন্য অবৈধ বিদ্যুৎ সংযোগ চালু করে কিছু অসাধু চক্র ও জনপ্রতিনিধি হরিণ শুকর শিকার করছে।গতরাতে সীতাকুণ্ড পৌরসভা ২নং ওয়ার্ডের পন্থিছিলা বাজারের পূর্ব পাশে কিছু দুষ্কৃতিকারী প্রতি রাতের মতো বন্য প্রাণী শিকারের জন্য অবৈধ বিদ্যুৎ সংযোগ চালু করে রাখে।ভোরে কৃষক নুর উদ্দীন জমিতে কৃষি কাজে যাওয়ার সময় বিদ্যুৎ পৃষ্ঠ হয়ে মৃত্যু বরণ করেন।অভাবী ঘরের উপার্নক্ষম ছেলেকে হারিয়ে বাকরুদ্ধ পরিবার।

সরেজমিনে জানা যায়,পৌরসভা ১নং ওয়ার্ডের উত্তর এয়াকুব নগর গ্রামে পাহাড়েও এরকম অবৈধ বিদ্যুৎ সংযোগ দিয়ে বন্যপ্রাণী শিকার করতে গিয়ে এক দিনমজুর বিদ্যুৎ পৃষ্ঠ হয়ে মৃত্যু বরণ করেছিলেন।তখনও কোন মামলা বা আইনি ব্যবস্থা না নেয়ায় বারবার এমন অপরাধ সংগঠিত হচ্ছে।

অবৈধ বিদ্যুৎ সংযোগ দিয়ে বন্যপ্রাণী শিকারের বিষয়ে বাড়বকুণ্ড বিদ্যুৎ অফিসের দায়িত্ববান প্রকৌশলী বাবু পলাশ মুঠোফোনে বলেন,আমাদের কাজের সীমাবদ্ধতা রয়েছে।গভীর রাতে বন্য শিকারে কিছু দুষ্কৃতিকারী এমন অপকর্ম করছে।ইতিমধ্যে এরকম অনৈতিক কাজ করায় বেশ কয়েক জায়গায় বিদ্যুৎ আইনে মামলা করা হয়েছে।তিনি আরো বলেন আজকে পন্থিছিলার ঘটনা তদন্তে নির্বাহী প্রকৌশলী স্যার সহ যাবেন।ঘটনার সত্যতা পেলে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সীতাকুণ্ড পৌরসভা এলাকায় কিছু লাইনম্যান,বিলের কাগজ প্রদানকারী অবৈধ বিদ্যুৎ সংযোগের সাথে যোগসাজশ থাকতে পারে বলে সাধারণ মানুষ বলেছেন।

এরকম অজস্র অভিযোগ ছাড়াও খামারীদের কাছ থেকে মাসিক হারে চাঁদা নেয় বাড়বকুণ্ড বিদ্যুৎ অফিসের বিলের কাগজ প্রদানকারী।টাকা না দিলে মিটারের বিল অতিরিক্ত করে দেয়।অফিসে গেলে বলে সরকারি বিল দিয়ে দিতে হবে।পরে এডজাস্ট করে দেবে।

উপরোক্ত বিষয়ে কঠোর আইন প্রয়োগ হলে দূর হবে সকল অপকর্ম।

See More

Latest Photos